উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম, উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন, ঘরে বসে উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২২

উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম, উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন
 উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন

বাংলাদেশে জনপ্রিয় মোবাইল ব্যাংকিং সেবা প্রদান কারি প্রতিষ্ঠার মধ্যে "উপায়" একটি। যার মাধ্যমে সকল লেনদেন সহজে করা যায়।" উপায়" সকল লেনদেনের হিসাব খুব সহজে করা যায়। এবং আপনি উপায় একাউন্ট কোন খাত থেকে টাকা লেনদেন করেছেন এবং কোন খাত কত টাকা আছে উপায় একাউন্ট তা খুব সহজে বুঝতে পারবেন। আজ আমরা শিখবো উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম। উপায় একাউন্ট কি ভাবে খোলা যায়। মোবাইল উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম ধাপ ধাপে ছবিসহ দেখানো হয়েছে। নিচে গিয়ে উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম গুলো দেখুন।

উপায় কি?

উপায় হলো ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক (UCB) এর একটি মোবাইল ব্যাংকিং সেবা। উপায় এর যাত্রা শুরু করে ২০২১ সালের মার্চ মাস থেকে। উপায় এর মাধ্যমে আপনারা অন্যান্য ব্যাংকিং সেবা গুলোর মতো সুবিধা পাবেন। উপায় এর মাধ্যমে আমরা সহজে একটি উপায় একাউন্ট থেকে অন্য উপায় একাউন্টে টাকা লেনদেন করতে পারবো। উপায় একাউন্ট সহজে লেনদেন করতে পারবো।

বিকাশ, নগদ, রকেট একাউন্টের মতো উপায় একটি মোবাইল ব্যাংকিং। উপায় একাউন্ট এর মাধ্যমে ক্যাশ আউট, সেন্ড মানি, মোবাইল রিচার্জ, বিল পেমেন্ট, অনলাইন শপিং সহ আরো বিভিন্ন ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারবেন। আর দেরি না করে এখনি উপায় একাউন্ট খুলন। কিভাবে উপায় একাউন্ট খুলতে হয় তা নিচে দেখুন উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং অ্যাপ ছাড়া উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম।

উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন করতে কি লাগে?

আপনি যদি উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন বা খোলতে চান তাহলে আপনাকে নিচে কাগজ গুলো লাগবে। উপায় একাউন্ট খোলার জন্য আপনার জাতীয় পরিচয়পত্রের মূল কপি বা NID Card মূল কপি এবং মোবাইল ফোন সহ মোবাইল নাম্বার অবশ্য মোবাইল নাম্বারটি সক্রিয় বা চালু থাকতে হবে। এগুলো নিওয়ার পরে আপনি উপায় একাউন্ট খোলার জন্য উপায় অ্যাপ Google Play Store থেকে ডাউনলোড করুণ এরপরে নিচে ধাপ গুলো অনুযায়ী আপনি উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন করুণ। আপনি ঘরে বসে উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন করতে পারবেন।

উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম, উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন পদ্ধতি বা ধাপ

ধাপঃ ১ একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন

উপায় অ্যাপ ডাউনলোড করার হয়ে গেলে। উপায় অ্যাপ "Open" করুণ। এর পরে "লগইন / রেজিষ্ট্রেশন" বাটনে ট্যাপ করুন।

একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন
একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন

ধাপঃ ২ মোবাইল নাম্বার প্রদান

এখানে আপনি যে নাম্বারে উপায় একাউন্ট খোলতে চান সে মোবাইল নাম্বারটি দিন এবং অপারেটর সিলেক্ট করুণ। মোবাইল নাম্বার দেওয়া এবং অপারেটর সিলেক্ট হলে "ভেরিফাই মোবাইল / Verify Number"  চিহ্নতে ট্যাপ করুন

মোবাইল নাম্বার প্রদান
মোবাইল নাম্বার প্রদান

ধাপঃ ৩ মোবাইল নাম্বার ভেরিফাই

আপনার প্রদানকৃত মোবাইল নাম্বার ভেরিফাই করার জন্য উপায় থেকে আপনার মোবাইল নাম্বারটি একটি এসএমএস প্রদান করা হবে এবং সেখানে থাকা OTP Code প্রদান করতে হবে। কিন্তু এই OTP code অটোমেটিক পূরণ হয়ে ভেরিফাই হয়ে যাবে। 

মোবাইল নাম্বার ভেরিফাই
মোবাইল নাম্বার ভেরিফাই

ধাপঃ ৪ NID Card ছবি তুলুন

আপনি যে জাতীয় পরিচয়পত্র দিয়ে উপায় একাউন্ট রেজিষ্ট্রেশন করতে চান সেই NID Card এর ছবি তুলুন প্রথমে আপনার NID Card এর "সামনের দিক" বা ছবি যুক্তি দিক তুলুন এবং ছবি ভালো হলে "Done" বাটনে ট্যাপ করুণ। এর পরে NID Card এর অপর দিক বা "পিছনের দিক" ছবি তুলুন এবং "Done" বাটনে ট্যাপ করুণ।

NID card এর ছবি তুলুন
NID card এর ছবি তুলুন

ধাপঃ ৫ চেহারার ছবি তুলুন

আপনি আপনার ছবি তুলুন এবং ছবি তোলার সমস্যা চারপাশে পর্যাপ্ত আলো রাখা। ছবি ভালো হলে "Done " বাটনে ট্যাপ করুন।

চেহার ছবি তুলুন
চেহারা ছবি তুলুন

ধাপঃ ৬ তথ্য দিন

আপনার সম্পর্কে কিছু তথ্য প্রদান করতে হবে। যেমন, লিঙ্গ, পেশা ইত্যাদি দিয়ে "কনর্ফম / Confirm" বাটনে ট্যাপ করুণ।

অন্যান তথ্য দিন
তথ্য দিন

ধাপঃ ৭ তথ্য যাচাই করুণ

আপনার প্রদানকৃত জাতীয় পরিচয়পত্র অনুযায়ী তথ্য প্রদান করা হয়েছে সেখানে কোন ভুল থাকলে তা ঠিক করে "কনর্ফম / Confirm" বাটনে ট্যাপ করুণ।

তথ্য যাচাই করুণ
তথ্য যাচাই করুণ

ধাপঃ ৮ কনর্ফামেশন SMS

আপনার সকল তথ্য ঠিক থাকলে আপনাকে একটি কনর্ফামেশন এসএমএস প্রদান করা হবে উপায় থেকে  এবং অস্থায়ী ভাবে আপনাবে পিন PIN প্রদান করা হবে।

কনর্ফামেশন এসএমএস
কনর্ফামেশন এসএমএস

ধাপঃ ৯ একাউন্ট লগইন

উপায় অ্যাপ ওপেন করার পরে "লগইন" বাটনে ট্যাপ করুন এর পরে আপনার মোবাইলে এসএমএস এ প্রদানকৃত পিন PIN এবং মোবাইল নাম্বার দিয়ে "লগইন" বা "" চিহ্নতে বাটনে ট্যাপ করুণ।

উপায় একাউন্ট লগইন
উপায় একাউন্ট লগইন

ধাপঃ ১০ উপায় একাউন্ট পিন সেট

এখন আপনার উপায় একাউন্ট এর জন্য আপনার পছন্দের একটি নতুন পিন দুই বার প্রদান করেন এবং "কনর্ফম / Confirm" বাটনে ট্যাপ করুণ।

উপায় একাউন্ট পিন সেট
পিন সেট

ধাপঃ ১১ উপায় একাউন্ট সক্রিয় / চালু

আপনার উপায় একাউন্ট চালু হয়েছে। "Get Started" বাটনে ট্যাপ করে আপনার প্রযোজনীয় লেনদেন শুরু করে। উপায় এর সকল তথ্য যাতে আমাদের কৌণিক বার্তা ওয়েবসাইট ভিজিট করুণ।

উপায় একাউন্ট চালু
উপায় একাউন্ট চালু

উপায় একাউন্ট ক্যাশ আউট চার্জ কত?

তবে, অন্যান্য মোবাইল ব্যাংকিং সেবা গুলোর থেকে উপায় (upay) এ বিশেষ কিছু সুবিধা রয়েছে। যেগুলো নিচে উল্লেখ করা হলো,

  • সর্বনিম্ন ক্যাশ আউট চার্জ ভ্যাট সহ প্রতি হাজারে ১৪ টাকা মাত্র।
  • USSD কোড ডায়াল করে অ্যাপ ছাড়াই বাটুন মোবাইল থেকে ক্যাশ আউট করলে একই চার্জ প্রতি হাজারে ১৪ টাকা ভ্যাট সহ।
  • অ্যাপ বা ইউএসএসডি (USSD) কোড ডায়াল করে ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক (Upay) এর এটিএম (ATM) বুথ থেকে টাকা তুললে প্রতি হাজারে ৮ টাকা খরচ ভ্যাট সহ।

অ্যাপ ছাড়া উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম

আপনি যদি অ্যাপ ছাড়া উপায় একাউন্ট খুলতে চান, তাহালে আপনার নিকটস্থ উপায় এজেন্টের অথবা উপায় কাস্টোমার কেন্দ্র সাথে যোগাযোগ করুন। উপায় এজেন্টদের কাছ থেকে উপায় একাউন্ট খোলার জন্য অবশ্যই আপনাকে সাথে নিয়ে যেতে হবে "জাতীয় পরিচয়পত্র বা NID Card এবং মোবাইল"। উপায় এজেন্টদের কাছে গিয়ে আপনি বলবেন উপায় একাউন্ট খুলতে চান। তারা আপনাকে ৫ থেকে ১০ মিনিটের মধ্যে উপায় একাউন্ট খুলে দিবে।

আশাকরি, আমি আপনাদের অ্যাপ ছাড়া উপায় একাউন্ট খোলার নিয়ম বুঝতে পারছি। যদি আপনি বুঝতে না পারেন তাহলে আমাদের জানাবে আমরা চেষ্টা করবো আপনাকে সহায়তা করা জন্য।

উপায় একাউন্ট এর সুবিধা

  1. ক্যাশ ইনঃ উপায় এজেন্টদের কাছে থেকে সহজে ক্যাশ ইন করা যাবে। 
  2. মোবাইল রিচার্জঃ উপায় একাউন্টের ব্যালেন্স থেকে সহজে আপনারা মোবাইল রিচার্জ করতে পারেন।
  3. সেন্ড মানিঃ দেশের যেকোনো প্রান্তে এক একাউন্ট থেকে অন্য একাউন্টে সহজে টাকা পাঠাতে পারবেন। 
  4. পে বিলঃ উপায় একাউন্ট থেকে ঘরে বসে বিদ্যুৎ বিল, গ্যাস বিল, ক্রেডিট কার্ড বিল সহ অন্যান্য বিল দিতে পারবেন।
  5. ফান্ড ট্রান্সফারঃ ছুটির দিনেও আপনারা ব্যাংক একাউন্ট থেকে উপায় একাউন্টে টাকা আনতে পারবেন।
  6. পেমেন্টঃ দেশের বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে থাকা মার্চেন্ট টাচপয়েন্ট গুলোতে সহজে পেমেন্ট করতে পারবেন। 
  7. ক্যাশ আউটঃ উপায় এজেন্ট থেকে যেকোনো সময় সহজে টাকা তোলা যাবে। তাছাড়া, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক এর এটিএম বুথ থেকে ২৪ ঘন্টা টাকা তোলা যাবে।

উপায় একাউন্ট বোনাস কিভাবে নিবেন

গ্রহকগণ অ্যাপ দিয়ে উপায় একাউন্ট খুললে ২৫ টাকা বোনাস পাবেন। এছাড়া রেজিষ্ট্রেশন করার ৭ দিনের মধ্যে উপায় অ্যাপ থেকে যেকোনো নম্বরে ৫০ টাকা বা তার বেশি পরিমানে রিচার্জ করলে পাবেন আরো ২৫ টাকা বোনাস। এই উপায় বোনাস টাকা আপনারা ক্যাশ আউট করতে পারবেন না। বোনাস টাকা মোবাইল রিচার্জ করতে পারবেন। উপায় একাউন্ট এর সকল বোনাস বা অফার সম্পর্কে জানতে চোখ রাখুন কৌণিক বার্তা, Kounik Barta ফেসবুক পেজে। 

উপায় মোবাইল ব্যাংকিং কোড , উপায় একাউন্ট কোড

অন্যান্য মোবাইল ব্যাংকিং এর মতো উপায় একাউন্টের একটি নিদিষ্ট কোড রয়েছে। উপায় মোবাইল ব্যাংকিং কোড হলো, *২৬৮# এই কোড ডায়াল করে উপায় একাউন্ট চেক করতে পারবেন। এছাড়াও আপনারা উপায় মোবাইল ব্যাংকিং অ্যাপ ডাউনলোড করে খুব সহজে এর সকল সুযোগ সুবিধা গুলো উপভোগ করতে পারবেন।

উপায় হেল্পলাইন / কাস্টমার কেয়ার

উপায় সম্পর্কে যেকোনো তথ্য জানতে তাদের হেল্পলাইন / কাস্টমার কেয়ারে সাথে সরাসরি কথা বলুন ১৬২৬৮ নম্বরে। দিন রাত ২৪ ঘন্টা উপায় হেল্পলাইনে কথা বলা যাবে।

উপায় পরিচয়, উপায় সম্পর্কে কিছু কথা

গর্বিত বাংলাদেশী হিসেবে আমাদের সবচেয়ে বড় শক্তির জায়গা হলো, হাল না ছেড়ে দিয়ে আমরা যেকোনো বাধা-বিপত্তির সম্মুখীন হতে পারি এবং সমাধানের পথ খুঁজে বের করে আবার পূর্বের অবস্থায় ফিরে যেতে পারি। এই আশাবাদী চিন্তা থেকে প্রেরণা নিয়ে, গ্রাহকদের সমস্যাগুলো সমাধান করতে এবং প্রতিটি মানুষের আরও কাছে অর্থনৈতিক পরিষেবাগুলো পৌঁছে দেয়ার জন্যই প্রতিষ্ঠিত হয়েছে “উপায়”।

উপায়, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংকের সাবসিডিয়ারি ‘ইউসিবি ফিনটেক কোম্পানি লিমিটেড’ এর একটি মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস ব্র্যান্ড। বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে লাইসেন্স পাওয়ার পরে, ২০২১ সালের ১৭ মার্চ দেশের সর্বস্তরের মানুষকে সুলভ, নিরাপদ ও বিস্তৃত মোবাইল ব্যাংকিং সেবা প্রদানের লক্ষ্যে উপায় তার যাত্রা শুরু করে।

উপায় এর প্রোডাক্ট এবং সার্ভিসের মধ্যে রয়েছে মোবাইলে টাকা আদান-প্রদান, ইউটিলিটি বিল পেমেন্ট, ইন-স্টোর ও ই-কমার্স পেমেন্ট, রেমিট্যান্স গ্রহণ, বেতন প্রদান, সরকারি ভাতা গ্রহণ, মোবাইল রিচার্জ, ট্রাফিক জরিমানা প্রদান, ভারতীয় ভিসা ফি পেমেন্ট এবং অন্যান্য ভ্যালু অ্যাডেড সার্ভিসসহ নানা ধরনের সেবা। উপায়ের গ্রাহকরা সবচেয়ে সাশ্রয়ী মূল্যে দেশব্যাপী ছড়িয়ে থাকা উপায় এজেন্ট ও মার্চেন্ট নেটওয়ার্ক থেকে পরিষেবাগুলো উপভোগ করতে পারবেন।

ডিজিটাল বাংলাদেশ’ গড়ার ভিশন নিয়ে উপায় সক্রিয়ভাবে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলেও ডিজিটাল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস পৌঁছে দিতে ভূমিকা রাখবে। উপায় লক্ষ লক্ষ মানুষের জীবনে প্রভাব রাখবে এবং দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের জনগোষ্ঠীকে আর্থিক অন্তর্ভু্ক্তিকরণের মাধ্যমে বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করবে।

উপায় এর লক্ষ্য, ডিজিটাল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস ইন্ডাস্ট্রিতে একটি নতুন যুগের সূচনা করা, যেখানে গ্রাহকের চাহিদাকেই দেওয়া হবে সর্বোচ্চ গুরুত্ব। সুন্দর, সুলভ ও নিরাপদ সেবা নিশ্চিত করে যেকোনো সমস্যা সমাধানের জন্য আমরা সবসময় গ্রাহকদের পাশে আছি।

সূত্রঃ উপায় অফিসিয়াল সাইট

Next Post Previous Post
মন্তব্যগুলো দেখান
মন্তব্যগুলো যোগ করুণ

আপনার মূল মান মতামতটি আমাদের জানান। আমি শালীন ভাষা ব্যাবহার করবো এবং অশ্লীল ভাষা ব্যাবহার থেকে বিরত থাকবো। কৌণিক বার্তা.কম আপনার আইপি অ্যাড্রেস ব্লকের ক্ষমতা রাখে।

comment url